শনিবার , ৫ই ডিসেম্বর, ২০২০ , ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ , ১৯শে রবিউস সানি, ১৪৪২

হোম > জাতীয় > উৎসব মুখর ঢাকা

উৎসব মুখর ঢাকা

শেয়ার করুন

স্টাফ রিপোর্টার ॥
ঢাকা: চন্দ্রিমা উদ্যান কিংবা শিশু পার্ক, হাতির ঝিল কিংবা কুড়িল ফাইওভার- সব জায়গায় মানুষের সমাগম। রাজপথ কিংবা পাড়ার গলিপথ, সদল কিশোর-কিশোরী, তরুণ-তরুণীর চলাচল। তাদের পরনে নতুন জামা, নতুন সাজ। সবার অভিব্যক্তি-মুখাবয়বে একই চিত্র- আনন্দোচ্ছলতা।

রাজধানীর সড়কগুলোর মোড়ে, সড়কদ্বীপে, ফোয়ারার সামনে, কিংবা রাস্তার পাশের কোনো ম্যুরাল কিংবা ফুলগাছের ঝুপের সামনে দাঁড়িয়ে সবান্ধব ছবি তুলছে কেউ কেউ।  চটপটির কাচের ভ্যান ঘিরে পাতা চেয়ারগুলো পূর্ণ শিশু-কিশোর, তরুণ-তরুণীর দলে।  বিভিন্ন উদ্যান আর দর্শনীয় স্থানগুলোয় ভিড় জমেছে সব বয়সী মানুষের।

রাস্তার পাশে উড়ছে রংবেরঙের পতাকা। সড়কদ্বীপগুলো সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। নির্জট সড়ক, নিরুদ্বিগ্ন পথিক। বিভিন্ন ভবন সাজানো হয়েছে আলোকমালায়, সন্ধ্যায় ঝলমলে করে উঠবে সেসব।

রাজধানী ঢাকা এখন এমনই ছিমছাম উৎসবের নগর। রাস্তা দিয়ে শাঁ শাঁ করে গাড়ি ছুটছে, কিন্তু ভিড় নেই, যানজট নেই। চারপাশে নানা বয়সী পরিপাটি মানুষের চলাচল, কিন্তু কোলাহল নেই, হইচই নেই। দলবেঁধে তারা ছুটছেন নগরীর বিভিন্ন বিনোদনকেন্দ্রে কিংবা আত্মীয়স্বজনের বাসায়। রাজপথে দ্রুতযানের পাশাপাশি ছুটছে রিকশা। তাতে রঙবেরঙের পোশাকে ছেলে-বুড়ো-তরুণ-তরুণীর ঈদের আবেশমাখা উজ্জ্বল মুখ। এমন বাধাহীন ঢাকাই যেন তারা এত দিন চেয়ে এসেছে।

মিরপুরের পল্লবীর মামুদ যেমন বলেন, যদি সব সময় এমন থাকত ঢাকা! মামুদ তার বন্ধুদের নিয়ে বেরিয়েছে শহর ঢাকা ঘুরবে বলে। কোনো নির্দিষ্ট গন্তব্য নেই তাদের।

কিন্তু কাফরুলের জহুরুল হক সপরিবারে বেরিয়েছেন বেগুনবাড়ী-হাতিরঝিল প্রকল্প দেখতে। তার আগে কিছুণ সংসদ ভবন এলাকা ঘুরবেন। এরপর হাতিরঝিল গিয়ে সন্ধ্যা পর্যন্ত সেখানে থাকবেন।  টিভি-পত্রিকায় দেখা  সন্ধ্যার ঝলমলে হাতিরঝিল উপভোগ করতে চান সপরিবারে।

আবার পুরান ঢাকার খায়রুল ইসলাম তার দুই ছোট ভাইকে নিয়ে ছুটছেন কুড়িল ফাইওভার দেখতে। মাত্রই কদিন আগে উদ্বোধন হয়েছে। ঢাকার সব জায়গাই দেখা আছে, শুধু এই নতুন ফাইওভার দেখা হয়নি।

একদল পথশিশু ছুটছে শিশুপার্কের দিকে। তাদের পরনেও নতুন জামা। শিশুপার্কে আজ টিকেট ছাড়া ঢুকতে দেবে। তাই তাদের গন্তব্য শিশুপার্ক।

এভাবেই ঢাকার নানা প্রান্তের মানুষ বন্ধুবান্ধব, পরিবার-পরিজনসহ ঈদের আনন্দ নিয়ে বেরিয়েছে  নানা দর্শনীয় স্থানের উদ্দেশে। ঈদের জামাতের পরপরই মিরপুর চিড়িয়াখানা, শিশুপার্ক, হাতিরঝিল, বঙ্গবন্ধু নভোথিয়েটার, সংসদ ভবন, চন্দ্রিমা উদ্যান, উড়ালসেতুসহ নগরীর দর্শনীয় স্থানগুলোতে আসতে থাকে  ঈদের আনন্দপিয়াসী মানুষ। ঈদের আগে যারা ঢাকা ছেড়ে গ্রামে গেছেন ঈদ করতে, তারা এই পরিপাটি ঢাকা দেখা থেকে বঞ্চিতই হলেন।

মিরপুর চিড়িয়াখানার কাউন্টারগুলোতে  টিকিট বিক্রি করতে হিমশিম খাচ্ছেন কাউন্টারের কর্মীরা। সব কটি টিকিট কাউন্টারে  সকাল থেকে  দর্শনার্থীর ভিড়। নামাজের পরপরই এখানে আসতে শুরু করে বিনোদনপ্রত্যাশীরা। চিড়িয়াখানায় বিনোদন-প্রত্যাশীদের মধ্যে তরুণ-তরুণী যেমন আছে, তেমনি আছে সপরিবারে আসা লোকজন। এবার চিড়িয়াখানায় প্রাণীগুলোর মধ্যে নতুন অতিথি আছে কয়েকটি। আরব্য ঘোড়ার বাচ্চা, ময়ূরছানা এর অন্যতম।

>