মঙ্গলবার , ১লা ডিসেম্বর, ২০২০ , ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ , ১৫ই রবিউস সানি, ১৪৪২

হোম > রাজনীতি > জয় আওয়ামী লীগের কে? : মির্জা আলমগীর

জয় আওয়ামী লীগের কে? : মির্জা আলমগীর

শেয়ার করুন

স্টাফ রিপোর্টার ॥ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পুত্র সজীব ওয়াজেদ জয়ের বক্তব্যে দেশের রাজনীতিতে নীলনকশার ইঙ্গিত রয়েছে এমন মন্তব্য করে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছেলে সজীব ওয়াজেদ জয় আওয়ামী লীগের কে? সে আওয়ামী লীগ বা সরকারের কোনো পদে আছে কিনা আমার জানা নেই। জয় গত কয়েক দিন আগে যে বক্তব্য দিয়েছে তা নীলনকশার ইঙ্গিত বহন করে বলেই দেশের জনগণ মনে করে।

রাজধানীর ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে তিতাস গ্যাস জাতীয়তাবাদী শ্রমিক-কর্মচারী ইউনিয়ন (রেজি. নং-বি-১৯৪০) আয়োজিত আলোচনা সভা,  দোয়া ও ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

সংগঠনের সভাপতি মো. হানিফ শেখের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমান, শ্রমবিষয়ক সম্পাদক জাফরুল হাসান প্রমুখ বক্তৃতা করেন।

মির্জা আলমগীর বলেন, যে সরকার আলেম-ওলামাদের নির্বিচারে গুলি করে হত্যা করে তাদের সাথে কোনো আপস নেই। তিনি বলেন, আগামী দিনে সুযোগ সন্ধানীদের বিএনপিতে কোনো জায়গা হবে না। সরকারের সাড়ে চার বছরে যারা নির্যাতিত হয়েছে আগামীতে তাদের দলে মূল্যায়ন করা হবে। যারা সুযোগসন্ধানী আছেন তাদের জায়গা বিএনপিতে হবে না। আন্দোলনের জন্য সকলকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব বলেন, সরকার দেশকে মৃত্যুপুরীতে পরিণত করে মানুষকে অন্ধকার সুড়ঙ্গের দিকে ঠেলে দিচ্ছে। তিনি বলেন, দেশের মানুষকে রা করতে এ সরকারকে ব্যালটের মাধ্যমে সরানোর কোনো বিকল্প নেই। তাই সকল দ্বিধা-দ্বন্দ্ব ভুলে জাতীয় ঐক্য সৃষ্টি করে সরকারের বিরুদ্ধে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। যাতে সরকার তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে বাধ্য হয়।

মির্জা আলমগীর বলেন, সরকার সকল গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানকে ধ্বংস করে দিয়েছে। বিদ্যুৎ-গ্যাসে দুর্নীতি করেছে। বিএনপির হাজার হাজার নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে অবৈধভাবে মামলা করে নির্যাতন করা হয়েছে। আগে কোর্টে গিয়ে সুরাহা পেলেও দলীয়করণের কারণে তা পাওয়া যাচ্ছে না। বর্তমান সরকারের সময় সবচেয়ে বেশি বিরোধী দলের নেতাকর্মীরা নির্যাতিত হয়েছে। এখন তাদের পিঠ দেয়ালে ঠেকে গেছে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

>