রবিবার , ২৯শে নভেম্বর, ২০২০ , ১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ , ১৩ই রবিউস সানি, ১৪৪২

হোম > Uncategorized > টঙ্গী থেকে ১২ জামায়াত-শিবির কর্মী আটক

টঙ্গী থেকে ১২ জামায়াত-শিবির কর্মী আটক

শেয়ার করুন

টঙ্গী প্রতিনিধি ॥ রাজধানীর অদূরে টঙ্গী এলাকা থেকে ১২ জামায়াত-শিবির কর্মীকে আটক করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন-১ (র‌্যাব)। আটকদের মধ্যে দু’জন পুলিশের অস্ত্র ছিনিয়ে নেওয়ার মামলার সন্দেহভাজন আসামি।

বুধবার মধ্যরাত থেকে বৃহস্পতিবার ভোর পর্যন্ত এক অভিযানে তাদের আটক করা হয়।

বৃহস্পতিবার রাত ১১টায় র‌্যাব-১ এর সদর দপ্তর উত্তরায় আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়।

আটকরা হলেন, জামায়াত কর্মী আবদুল কাইয়ুম (৫০), নিয়ামত উল্লাহ (৩৬), শিবির কর্মী সাইদ আহমেদ (২২), তাজুল ইসলাম (২১), শাহাদত হোসেন (২১), মনসুর আহমেদ (১৮), নাজমুল হক ওরফে নাসিম (১৮), শহীদুল ইসলাম (২২), তরিকুল ইসলাম (২১), আবুল কাশেম (২৭), নুর আহমেদ (২৮) এবং সোহাগ হোসেন (২৮)।

র‌্যাব-১ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল কিসমত হায়াৎ জানান, গত ১৫ ও ১৭ জুলাই জামায়াত-শিবিরের হরতাল চলাকালে রাজধানীর আবদুল্লাহপুর ও উত্তরায় গাড়ি ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করে জামায়াত-শিবির কর্মীরা। পরে গোয়েন্দা তথ্যে জানা যায় এরা টঙ্গী এলাকায় অবস্থান করছে। প্রাপ্ত খবরের ভিত্তিতে দ্রুত অভিযান চালিয়ে এদের আটক করা হয়।

এ সময় তাদের কাছ থেকে হেফাজতে ইসলামের লিফলেট সহ বিপুল পরিমাণ জিহাদি বইপুস্তক উদ্ধার করা হয়।

তিনি আরো জানান, যুদ্ধাপরাধীদের বিচার নস্যাৎ করার জন্য জামায়াত-শিবির দেশব্যাপী যে তাণ্ডব চালাচ্ছে এরই ধারাবাহিতায় রাজধানীতেও তাণ্ডব চালানো হচ্ছে। আর এতে এসব শিবির কর্মীরা অংশ নিচ্ছে।

লে. কর্নেল কিসমত হায়াৎ আরো জানান, আটকদের মধ্যে নাজমুল হক ও তরিকুল ইসলাম ভাটারা থানা পুলিশের অস্ত্র ছিনিয়ে নেওয়ার মামলার আসামি। আটকদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া চলছে।

>