সোমবার , ২৫শে জানুয়ারি, ২০২১ , ১১ই মাঘ, ১৪২৭ , ১১ই জমাদিউস সানি, ১৪৪২

হোম > খেলা > নতুন বছরের প্রথম ম্যাচেও মাঠে ফেরা হবে না ওয়ার্নারের!

নতুন বছরের প্রথম ম্যাচেও মাঠে ফেরা হবে না ওয়ার্নারের!

শেয়ার করুন

স্পোর্টস ডেস্ক ॥
ইনজুরির কারণে খেলতে পারলেন না বোর্ডার-গাভাস্কার ট্রফির প্রথম টেস্ট, সিডনিতে করোনার নতুন সংক্রমণ ধরা পড়ায় রাখা হয়নি বক্সিং ডে টেস্টেও। দুঃসংবাদের খাতা আরও ভারি হচ্ছে অস্ট্রেলিয়ার বাঁহাতি ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নারের। সিরিজের তৃতীয় টেস্টেও তার অংশগ্রহণ নিয়ে সন্দিহান টিম অস্ট্রেলিয়া।
গত নভেম্বরে ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে কুচকির ইনজুরিতে পড়েছিলেন ওয়ার্নার। যে কারণে খেলতে পারেননি সিরিজের বাকি অংশ এবং টি-টোয়েন্টি সিরিজের পুরোটা এবং টেস্ট সিরিজের প্রথম দুই ম্যাচেও। আশা ছিল, নতুন বছরের প্রথম ম্যাচটি (৭ জানুয়ারি) দিয়ে মাঠে ফিরবেন ওয়ার্নার।

কিন্তু অসি হেড কোচ জাস্টিন ল্যাঙ্গারের মতে, কুচকির ইনজুরি কাটিয়ে অনুশীলনে ফিরলেও, এখনও খানিক অস্বস্তি রয়েই গেছে তার দলের বাঁহাতি ড্যাশিং ওপেনারের। যদিও ওয়ার্নারের অনুপস্থিতিত বেশ ভোগাচ্ছে অস্ট্রেলিয়াকে। তবু ইনজুরি কাটিয়ে পুরোপুরি প্রস্তুত করেই ওয়ার্নারকে মাঠে নামানোর পক্ষে অস্ট্রেলিয়া।

বক্সিং ডে টেস্টের দ্বিতীয় দিন মধ্যাহ্ন বিরতির সময় ল্যাঙ্গার বলেছেন, ‘সে (ওয়ার্নার) অনেক বেশি পেশাদার এবং সম্ভাব্য সবকিছুই চেষ্টা করছে। এই ম্যাচের আগে আমরা তাকে ব্যাটিং করতে দেখেছি। গতকালও (শনিবার) মেলবোর্নে ব্যাটিং করেছে। ব্যাটিংয়ের দিক থেকে সে রীতিমতো উড়ছে। কিন্তু কুচকির সমস্যাটা পুরোপুরি ছাড়েনি।’

তিনি আরও যোগ করেন, ‘আমরা সবাই জানি, ওয়ার্নার ডায়নামিক খেলোয়াড়। তার রানিং বিট্যুইন দ্য উইকেট, মাঠের মধ্যে মুভমেন্ট- এসব বিষয়ে সেরা জায়গার খুব কাছেই আছে। আশা করছি দারুণভাবেই ফিরবে সে। সময়ই সব বলে দেবে। পরের টেস্ট ম্যাচের জন্য এখনও কিছুদিন সময় আছে আমাদের।’

উল্লেখ্য, এখন চলছে অস্ট্রেলিয়া ও ভারতের মধ্যকার বোর্ডার-গাভাস্কার ট্রফির দ্বিতীয় টেস্ট। আগামী ৭ জানুয়ারি সিরিজের তৃতীয় টেস্টের মধ্য দিয়ে নতুন বছরের প্রথম ম্যাচ খেলবে এ দুই দল। সে ম্যাচে ওয়ার্নারের ফেরা নিয়েই দেখা দিয়েছে অনিশ্চয়তা।

>