বৃহস্পতিবার , ৪ঠা মার্চ, ২০২১ , ১৯শে ফাল্গুন, ১৪২৭ , ১৯শে রজব, ১৪৪২

হোম > জাতীয় > সংসারের ঘানি টানতে নিজেরাই তেলের ঘানি টানেন ছয়ফুল দম্পতি

সংসারের ঘানি টানতে নিজেরাই তেলের ঘানি টানেন ছয়ফুল দম্পতি

শেয়ার করুন

রায়হান পারভেজ
জেলা প্রতিনিধি ॥
লালমনিরহাট: গরু না থাকায় ২০ বছর ধরে নিজেরাই তেলের ঘানি টানছেন লালমনিরহাটের কাকিনা তেলীপাড়ার ছয়ফুল ইসলাম (৪৫) ও মোর্শেদা বেগম (৩৮) দম্পতি। ঘানি টেনে সরিষা মাড়াই করে বাজারে তেল বিক্রির টাকায় চলে তাদের সংসার।

তেলী পরিবারটিতে গিয়ে দেখা যায় বাড়ীর উঠানে পলিথিনের চালা ঘরে স্থাপন করা হয়েছে গাছের গুঁড়ি দিয়ে তৈরি তেলের ঘানিটি। স্থানীয়ভাবে সেটিকে বলা হয় কলুর ঘানি। সেখানে স্ত্রী সন্তানের সহযোগিতায় জোঁয়াল কাধে ঘানি টানছেন ছয়ফুল। উদ্দেশ্য সরিষা হতে তেল তৈরি ও বিক্রি করে জীবিকা আর সন্তানদের পড়াশোনার খরচ যোগানো। প্রযুক্তির এই যুগে এত কষ্ট করে সংসার চালানোর ঘটনা খুবই বিরল।

কার্যক্রম বিষয়ে কথা হলে ছয়ফুল দম্পতি জানান, এক সময়ে একটি গরু থাকলেও সেটি মারা যাওয়ায় সংসারের ঘানি টানতে নিজেরাই টেনে চলছেন এ তেলের ঘানি।

সহায় সম্বল বলতে পৈত্রিকভাবে পাওয়া ৩ শতক জমি যেখানে টিনের ঘরে ২ ছেলে ও ১ মেয়ে নিয়ে বসবাস তাঁদের। প্রতিদিন ৪ থেকে ৬ ঘণ্টা ঘানি টেনে যে তেল পান তা খৈলসহ বিক্রি করে আয় হয় ২শ থেকে ২শ ৫০ টাকা যা দিয়ে কোনোরকম সংসার চালিয়ে দিনাতিপাত করেন পরিবারটি। তাই অর্থ সঞ্চয় না হওয়ায় সম্ভব হয়নি একটি গরু কেনাও।

ছয়ফুল ইসলাম জানান, আগে তার বাবা একাজ করতো। বাবার মৃত্যুর পর থেকে তিনি এ কাজ করে আসছেন। তবে শুধু এ পেশার উপর নির্ভর করে তাদের সংসার আর এখন চলছে না।

ছয়ফুল ইসলামের মেয়ে স্কুলে পড়ে। স্কুল থেকে ফিরে অনেক সময় না খেয়ে বাবা-মায়ের সাথে ঘানি টানে। করোনায় এখন স্কুল বন্ধ তাই বাবা-মাকে বেশি সাহায্য করতে পারছে সে। তাদের এই ঘানি টানা কবে শেষ হবে সে হয়তো জানে না। সমাজের বিত্তবানরা যদি একটু এগিয়ে আসে তাহলে হয়তো তাদের কষ্ট কিছুটা লাঘব হত।

>